কর্ম ও বাসস্থান

6330

Published on ডিসেম্বর 15, 2021
  • Details Image

ভুমি ও আবাসন

  • মুজিববর্ষে দেশের ৮ লাখ ৮২ হাজার ৩৩টি গৃহহীন পরিবারকে ঘর নির্মাণ করে দেওয়া হচ্ছে।
  • গুচ্ছগ্রাম (ক্লাইমেট ভিক্টিমস রিহ্যাবিলিটেশন) প্রকল্পের আওতায় বর্তমান সরকার ১৬ হাজার ১০৩টি গৃহহীন ভূমিহীন পরিবারের প্রতিটি পরিবারকে ৪-৮ শতক খাসজমির কবুলিয়াত দলিল, ৩০০ বর্গফুটের দুই কক্ষবিশিষ্ট ঘর, নলকূপ, মাল্টিপারপাস হল, আর্থসামাজিক উন্নয়নের জন্য আয়বর্ধক প্রশিক্ষণ ও ১৫ হাজার টাকা ক্ষুদ্রঋণ প্রদানসহ পুনর্বাসন করা হয়েছে।
  • কৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত নীতিমালা ১৯৯৭ এর আওতায় মাত্র ১ টাকা প্রতীকী মূল্যে ভূমিহীনদের সর্বোচ্চ ১ একর কৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত প্রদান করা হয়।
  • বর্তমান সরকারের সারাদেশে ২ লক্ষ ৩৮ হাজার ৩৮টি ভূমিহীন পরিবারকে ১ লক্ষ ১৬ হাজার ৩০৩ দশমিক ৪৩৪৮ একর কৃষি খাসজমি বন্দোবস্ত প্রদান।
  • ভাষাণটেক পুনর্বাসন প্রকল্পের আওতায় সরকারি জমিতে ছিন্নমূল বস্তিবাসী ও নিম্নবিত্তদের জন্য নির্মিত বহুতল বিশিষ্ট ভবনে ২০১৬টি ফ্লাট নির্মিত। এর মধ্যে ৫৯৬ জন বস্তিবাসীসহ ১৭৯৪টি ফ্লাটে সুবিধাভোগীগণ বসবাস করছেন।
  • ২৮ হাজার ৮৪৮ দশমিক ৯১ একর জমিসহ সর্বমোট ৩৫ হাজার ৫৩৫ দশমিক ৩০৬৬ একর অকৃষি খাসজমি ইতোমধ্যে বন্দোবস্ত প্রদান করা হয়েছে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়

  • বর্তমান সরকারের ঐকান্তিক ও সফল শ্রম কূটনৈতিক প্রচেষ্টায় ২০২০ সাল পর্যন্ত প্রায় ৫৯ লক্ষ ৭১ হাজার কর্মী কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে বিদেশ গমন করেছে।
  • অভিবাসনে পিছিয়ে থাকা ৪২ টি জেলা চিহ্নিতকরণ পূর্বক এসকল জেলাকে অগ্রাধিকার দিয়ে বৈদেশিক কর্মসংস্থান বৃদ্ধির উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।
  • কূটনৈতিক উদ্যোগের ফলে ওমান, মালয়েশিয়ার মত জনপ্রিয় শ্রমবাজার পুনরায় চালু করতে সক্ষম হয়েছে সরকার।
  • বিদেশে কর্মরত নারী কর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা ও অভিযোগ দ্রুত নিষ্পত্তির জন্য বিএমইটিতে একটি সেল গঠন করা হয়েছে। মন্ত্রণালয় ও দপ্তর/সংস্থায় অনলাইনে অভিযোগ ব্যবস্থাপনা চালু করা হয়েছে। তাছাড়া, প্রবাসবন্ধু কল সেন্টার (+৮৮ ০১৭৮৪ ৩৩৩ ৩৩৩, +৮৮ ০১৭৯৪ ৩৩৩ ৩৩৩, +৮৮ ০২-৯৩৩৪৮৮৮) স্থাপনের মাধ্যমে বিদেশগামী ও প্রবাসী কর্মীদের অভিযোগ/সহযোগিতার বার্তা জানাতে পারছেন।
  • বিগত জোট সরকারের আমলে যেখানে বিশ্বের মাত্র ৯৭টি দেশে কর্মী প্রেরণ করা হতো, সেখানে নতুন আরও ৬৮টি দেশে কর্মী প্রেরণসহ বর্তমানে এই সংখ্যা ১৬৫টি দেশে উন্নীত করতে সক্ষম হয়েছে।
  • ওয়েজ আর্নার্স কল্যাণ বোর্ড হতে প্রবাসী কর্মীর মেধাবী সন্তানদের লেখাপড়ায় উৎসাহ যোগাতে ২০১২ সাল থেকে সম্পূর্ণ ইলেকট্রনিক পদ্ধতিতে শিক্ষাবৃত্তি প্রদান করা হচ্ছে।
  • প্রবাসী কর্মীদের কল্যাণার্থে ২০১০ সালে প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংক প্রতিষ্ঠা বর্তমান সরকারের অন্যতম সাফল্য।

শ্রম ও কর্মসংস্থান

  • শিশু শ্রম নিরসন নীতিমালা-২০১০, বাংলাদেশ শ্রমনীতিমালা-২০১২, বাংলাদেশ শ্রম আইন সংশোধন-২০১৩, জাতীয় পেশাগত স্বাস্থ্য ও সেইফটি (ওএসএইচ) নীতিমালা-২০১৩ গৃহকর্মী সুরক্ষা ও কল্যাণ নীতি-২০১৫ প্রণয়ন করা হয়েছে। এছাড়া বর্তমানে ইউপিজেড আইন এবং শ্রম আইন সংশোধনের কাজও শেষ পর্যায়ে।
  • ২০১৩ সালের রানা প্লাজা’র মর্মান্তিক ট্রাজেডির পরে তৈরী পোশাক খাতে নতুন যুগের সুচনা হয়েছে।
  • শ্রমিকের পেশাগত অসুখের চিকিৎসার জন্য পিপিপি’র মাধ্যমে প্রায় তিন’শ তিন কোটি টাকা ব্যয়ে নারায়ণগঞ্জে দেশের প্রথম তিন’শ শয্যার পেশাগত বিশেষায়িত হাসপাতাল নির্মাণের কাজ শিখগিরই শুরু হবে। গত ২২ জুলাই শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় এবং এএফসি হেলথকেয়ার ও ভারতের ফোর্টিজ হেলথ লিঃ এর মধ্যে হাসপাতাল নির্মানের বিষয়ে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

জাতীয় পেশাগত স্বাস্থ্য ও সেইফটি(ওএসএইচ) নীতিমালা-২০১৩ প্রণয়ন করা হয়েছে। ২০১৬ থেকে ওএসএইচ ডে পালন করা হচ্ছে। রাজশাহীতে পাঁচ একর জমির ওপর নিজস্ব জায়গায় পেশাগত স্বাস্থ্য ও সেইফটি- ওএসএইচ একাডেমি নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

Live TV

আপনার জন্য প্রস্তাবিত